More

    ট্যাটু করতে চান? ফটোশপের মাধ্যমে করে নিন

    শুধু বর্তমান যুগে নয় প্রাচীনকাল থেকেই ট্যাটু বিভিন্ন আদিবাসীদের ঐতিহ্য ও সংস্কৃতির অঙ্গ ছিল। শরীরের বিশেষ অংশকে আকর্ষণীয় করে তুলতে ফ্যাশন জগতে ট্যাটু বহুল প্রচলিত। ওয়ার্ল্ডের খ্যাতনামা অভিনেতা-অভিনেত্রী বা ক্রিকেটারদের শরীরের বিভিন্ন স্থানে ট্যাটু করাতে দেখা যায়। আবার কম বয়সী অনেক যুবক-যুবতীদের অনেককে দেখা যায় হাতের ট্যাটু করে প্রেমিক বা প্রেমিকার নাম চিরস্থায়ীভাবে লিখে রাখে।

    প্রাচীনকালে ট্যাটু মূলত এনিম্যাল ফ্যাট বা পশুর চর্বি দিয়ে করা হতো। কাটার জন্য ব্যবহার করা হতো কাঁটাওয়ালা গাছের কাঁটা এবং ট্যাটুর রং কালো বা নীল হয়। বর্তমানে অনেক আধুনিকতার মাধ্যমে ট্যাটু করা হয়। ট্যাটু করতে যা যা লাগে তা হল ট্যাটু নিডলস, ট্যাটু ডিজাইন পেন, ট্যাটু মেশিন, কার্বন পেপার, ট্যাটু ইনক এবং পেট্রোলিয়াম জেলি ইত্যাদি।

    ইউটিউব ভিডিও দেখে দেখে সকলেই শিখেছি। তাই আপনি যদি গুরুত্ব সহকারে চেষ্টা করেন পারবেন, শুধুমাত্র ইউটিউব ভিডিও টিউটোরিয়াল দেখে দেখে বেসিক থেকে এডভান্স লেভেলের কাজগুলো সমাধান করতে পারবেন।

    টেক সম্পর্কিত লেখাটি ভালো লেগে থাকলে বন্ধুদের সাথে শেয়ার করো। এই ধরনের লেখার নিয়মিত আপডেট পেতে আমাদের ফেসবুক পেজটি ফলো করো।